নরওয়েকে আরও বিনিয়োগের আহ্বান অর্থমন্ত্রীর

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশিত: ৬ নভেম্বর ২০২০ ১৫:২৭; আপডেট: ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ ১৩:৪০

  • অর্থমন্ত্রী বলেন, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি, জাহাজ তৈরি ও মেরামত কারখানা, পানিসম্পদ ও নদী ড্রেজিং, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি, জলবায়ু পরিবর্তন ইত্যাদি খাতে বাংলাদেশে বিনিয়োগের বিনিয়োগের সুযোগ রয়েছে নরওয়ের ব্যবসায়ীদের।

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেছেন, দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে বিনিয়োগের ক্ষেত্রে বাংলাদেশের অবস্থান সবচেয়ে ভালো। চমৎকার বিনিয়োগবান্ধব পরিবেশের সুযোগ কাজে লাগিয়ে বাংলাদেশে আরও বিনিয়াগের জন্য নরওয়ের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

ঢাকায় নরওয়ের রাষ্ট্রদূত এসপেন রিকটারের সঙ্গে বৃহস্পতিবার এক ভার্চুয়াল সৌজন্য সাক্ষাতে এ আহ্বান জানান অর্থমন্ত্রী।

অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশ একটি অপার সম্ভাবনার দেশ। এই দেশে কেউ বিনিয়োগ করে ক্ষতিগ্রস্ত হয়নি। কাজেই নরওয়েরও ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার আশঙ্কা নেই।’

নরওয়েকে বাংলাদেশের উন্নয়নের অন্যতম অংশীদার উল্লেখ করে মুস্তফা কামাল বলেন, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি, জাহাজ তৈরি ও মেরামত কারখানা, পানিসম্পদ ও নদী ড্রেজিং, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি, জলবায়ু পরিবর্তন ইত্যাদি খাতে বাংলাদেশে বিনিয়োগের সুযোগ রয়েছে নরওয়ের ব্যবসায়ীদের।

বর্তমানে বাংলাদেশে বিদ্যুৎ ও জ্বালানি, পরিবেশ, সুশাসন, জেন্ডার ও মানবাধিকার, সংস্কৃতি, শিক্ষা এবং বেসরকারি খাতের উন্নয়নে বিনিয়োগ রয়েছে নরওয়ের।

নরওয়ের রাষ্ট্রদূত অর্থমন্ত্রীকে বলেন, ‘নরওয়ের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য ঘনিষ্ঠ করতে চায় বাংলাদেশ। বাংলাদেশে আরও বেশি বিনিয়োগ করতে চাই আমরা।’

বাংলাদেশের অগ্রগতির ভূয়সী প্রশংসা করেন এসপেন রিকটার। তিনি বলেন, ১০ বছর আগে বাংলাদেশে প্রথম এসেছিলেন তিনি। সেই বাংলাদেশ আর এখনকার বাংলাদেশ এক নয়। এ সময়ে বাংলাদেশের অনেক অগ্রগতি হয়েছে।

দারিদ্র্য বিমোচন, নারীর ক্ষমতায়নসহ অনেক ক্ষেত্রে বাংলাদেশ দক্ষিণ এশিয়ার উল্লেখযোগ্যভাবে এগিয়ে আছে মন্তব্য করে বাংলাদেশের উন্নয়নে সহযোগিতা অব্যাহত রাখার আশ্বাস দেন রাষ্ট্রদূত।



বিষয়:


আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top